দেশবাসী এক শ্বাসরুদ্ধর পরিস্থিতির শিকার: অধ্যক্ষ ইউনুছ আহমাদ

ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের মহাসচিব অধ্যক্ষ হাফেজ মাওলানা ইউনুছ আহমাদ বলেছেন, দেশবাসী এক শ্বাসরুদ্ধর পরিস্থিতির শিকার। বর্তমানে দেশ ও জাতি এক ক্রান্তিকাল অতিক্রম করছে। জনগণের মৌলিক অধিকার এমনকি ভোটাধিকারও ভূলুণ্ঠিত। বৈশ্বিক মহামারি করোনার ফলে জাতি এক সঙ্কটকাল অতিবাহিত করছে। আর এ সুযোগে স্বাস্থ্য বিভাগের ভয়াবহ দুর্নীতি বিশ্বে আমাদের চরম অপমানিত করছে। অপরদিকে দুর্নীতির সুচকে বাংলাদেশ অতীতের তুলনায় দুই ধাপ এগিয়েছে। যা জাতি হিসেবে বিশ্বে আমাদের হেয় করেছে। স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তীতেও দেশবাসী দুর্নীতির মহাসাগরে হাবুডুবু খাচ্ছে। এই কী ছিলো স্বাধীনতার চেতনা? তিনি বলেন, জনগণের ভোটাধিকার প্রতিষ্ঠায় ইসলামী অনুশাসনের বিকল্প নেই।

আজ বিকেলে পুরানা পল্টনস্থ আইএবি মিলনায়তনে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ ঢাকা মহানগর দক্ষিণের দ্বি-বার্ষিক মজলিসে শুরা অধিবেশনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

ঢাকা মহানগর দক্ষিণ সভাপতি মাওলানা মুহাম্মদ ইমতিয়াজ আলমের সভাপতিত্বে এবং সেক্রেটারি মাওলানা এবিএম জাকারিয়ার পরিচালনায় অনুষ্ঠিত শুরা অধিবেশনে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন দলের যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা গাজী আতাউর রহমান, আলহাজ্ব আমিনুল ইসলাম ও সাংগঠনিক সম্পাদক কেএম আতিকুর রহমান। অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, সহকারি মহাসচিব অধ্যক্ষ মাওলানা শেখ ফজলে বারী মাসউদ, মাওলানা আহমদ আবদুল কাইয়ূম, আলহাজ আলতাফ হোসেন, আলহাজ্ব আনোয়ার হোসেন, আলহাজ্ব আব্দুল আউয়াল, ডা. শহিদুল ইসলাম।

মাওলানা ইউনুছ আহমাদ বলেন, বর্তমান প্রধানমন্ত্রীর পিতা জাতির ভোটাধিকার প্রতিষ্ঠার জন্য জীবনপণ সংগ্রাম করলেও বঙ্গবন্ধু কন্যা জনগণের ভোটাধিকার হরণ করে ক্ষমতায় আজীবন টিকে থাকার জন্য মরিয়া হয়ে উঠছে। বর্তমান সিইসি সরকারের গোলামে পরিণত হওয়ায় দেশে একতরফা ভোট হচ্ছে। আর নির্লজ্জত সিইসি সাংবিধানিক এ পদটি প্রশ্নবিদ্ধ করে সরকারের গোলামে পরিণত হয়েছে।

এ জাতীয় আরো সংবাদ

যশোর-৬ আসনে বিপুল ভোটে নৌকার প্রার্থী বিজয়ী

আনসারুল হক

করোনায় আক্রান্ত হলেন যুবলীগের চেয়ারম্যান শেখ ফজলে শামস পরশ

আলাউদ্দিন

করোনা সহজে যাবে না, সতর্কবার্তা বিশেষজ্ঞদের

আনসারুল হক