মন্দিরে পেছন থেকে ধাক্কা, আহত মমতাকে নেওয়া হচ্ছে হাসপাতালে

পশ্চিমবঙ্গের তৃণমূল কংগ্রেসের প্রধান মমতা ব্যানার্জী নন্দীগ্রামে এক মন্দিরে গিয়ে পায়ে চোট পেয়ে আহত হয়েছেন। ভারতীয় গণমাধ্যমের খবরে বলা হয়, তাকে চিকিৎসার জন্য কলকাতার একটি হাসপাতালে নেওয়া হচ্ছে।

খবরে বলা হয়, রেয়াপাড়ায় একটি মন্দিরে হরিনাম সংকীর্তন চলছিল, সেখানে গিয়েছিলেন মমতা। সেখান থেকে ফেরার পথে এই ঘটনা ঘটেছে। অভিযোগ, ৪-৫ জন তাকে ধাক্কা মারে। তখন অনেক ভিড় ছিল।

তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়ায় মমতা বলেন, চার-পাঁচজন তাকে ঘিরে ধরেন ও তার গাড়ি ঘেষে দাঁড়ান।

তিনি আরও অভিযোগ করেন, সেই সময় এসপি ছিলেন না। পুলিশও ছিল না। এদিকে, এ ঘটনায় মুখ্যমন্ত্রীর নিরাপত্তা বড়সড় প্রশ্ন উঠেছে।

স্থানীয় গণমাধ্যমের খবরে আরও বলা হয়, বুধবার হলদিয়ায় মনোনয়নপত্র পেশ করেন মমতা। এরপর নন্দীগ্রামে ফিরে প্রচার শুরু করেন। এদিন তিনি একের পর এক মন্দির দর্শন করেন। রেয়াপাড়ায় তার বাড়ির কাছেই বরোলিবাজারে একটি মন্দিরে ভিড়ের মধ্যে ধাক্কাধাক্কিতে পড়ে যান তৃণমূল নেত্রী।

এ সময় পা ও মাথায় আঘাত লাগে তার। মমতার দেহরক্ষীরা তাকে নিয়ে যান গাড়িতে। রাস্তায় তার পায়ে বরফও দেওয়া হয়। সাধারণত গাড়িতে সামনে চালকের আসনের পাশে বসেন মমতা। কিন্তু যন্ত্রণায় কাতর মমতা বসতে পারছিলেন না। তাকে পাঁজাকোলা করে পিছনের সিটে শুইয়ে দেন নিরাপত্তারক্ষীরা।

সূত্র- ডয়চে ভেলে।

এ জাতীয় আরো সংবাদ

হামাস প্রধানের সঙ্গে বৈঠকে বসবেন ইসরায়েলি পররাষ্ট্রমন্ত্রী

আনসারুল হক

যুদ্ধবিধ্বস্ত ফিলিস্তিনি ওমরাযাত্রীদের সুখবর দিল সৌদি

নূর নিউজ

কাতারে আরো তিন শ মসজিদ খুলছে

আনসারুল হক